ঘূর্ণিঝড় ফণির ক্ষত শুকাতে না শুকাতেই এবার আসছে মহাসেন।

364

ভয়াবহ ঘূর্ণিঝড় ফণির ক্ষত শুকাতে না শুকাতেই এবার আসছে মহাসেন। আগামী ৭২ ঘণ্টার মধ্যে এটি আছড়ে পড়বে উত্তর-পূর্ব ভারতে। যা খেপুপাড়া ও টেকনাফের মধ্য দিয়ে প্রবেশ করবে মিয়ানমারে। ভারতের আবহাওয়া অফিসের বরাত দিয়ে দেশটির গণমাধ্যমে এমনটাই বলা হচ্ছে।
এ ব্যাপারে আবহাওয়াবিদরা তাদের পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, মহাসেনের প্রভাব পড়বে আসাম, মেঘালয়, নাগাল্যান্ড, মণিপুর, মিজোরাম ও ত্রিপুরায়। এর প্রভাবে বজ্রপাতসহ ঝড় ও প্রবল বৃষ্টি হতে পারে। এ সময় ঘণ্টায় ৭০ কিলোমিটার বেগে বাতাস প্রবাহিত হতে পারে।

এদিকে কয়েকদিন আগেই ভারতের উড়িষ্যায় ধ্বংসযজ্ঞ চালিয়েছে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় ফণি। এর ফল উড়িষ্যায় অন্তত ৩৩ জনের মৃত্যু হয়। উড়িষ্যার পর ফণি পশ্চিমবঙ্গ হয়ে অপেক্ষাকৃত অনেক দুর্বল হয়ে বাংলাদেশে আঘাত হানে। এর প্রভাবে বাংলাদেশেও অন্তত ১৭ জন নিহত হয়।
এদিকে ভারতের আবহাওয়া অফিস বলছে, ঘূর্ণিঝড় মহাসেন বাংলাদেশের চট্টগ্রামের কাছে খেপুপাড়া এবং টেকনাফের মধ্যে দিয়ে মিয়ানমারে প্রবেশ করবে। আগামী তিন দিন উত্তর-পূর্ব ভারতের রাজ্যগুলোতে এরই মধ্যে সতর্কতা জারি করা হয়েছে।